হাদীছের গল্প

সুলায়মান (আঃ)-এর হিকমতপূর্ণ বিচার

আল্লাহর রাসূল (ছাঃ) বলেছেন, দু’জন মহিলা ছিল, তাদের সাথে দু’টি সন্তানও ছিল। হঠাৎ একটি বাঘ এসে তাদের একজনের ছেলেকে নিয়ে গেল। সঙ্গের একজন মহিলা বলল, ‘তোমার ছেলেটিকেই বাঘে নিয়ে গেছে’। অন্য মহিলাটি বলল, ‘না, বরং বাঘে তোমার ছেলেটি নিয়ে গেছে’। অতঃপর উভয়ে এ বিষয়ে দাঊদ (আঃ)-এর নিকট বিরোধ মীমাংসার জন্য বিচারপ্রার্থী হ’ল। তখন তিনি ছেলেটির বিষয়ে বয়ষ্কা মহিলাটির পক্ষে রায় দিলেন। অতঃপর তারা উভয়ে বেরিয়ে দাঊদ (আঃ)-এর পুত্র সুলায়মান (আঃ)-এর নিকট দিয়ে যেতে লাগল এবং তারা দু’জনে তাঁকে ব্যাপারটি জানালেন। তখন তিনি লোকদেরকে বললেন, তোমরা আমার নিকট একখানা ছোরা নিয়ে আস। আমি ছেলেটিকে দু’টুকরা করে তাদের দু’জনের মধ্যে ভাগ করে দেই। এ কথা শুনে অল্প বয়ষ্কা মহিলাটি বলে উঠল, তা করবেন না, আল্লাহ আপনার উপর রহম করুন। ছেলেটি তারই। তখন তিনি ছেলেটি সম্পর্কে অল্প বয়ষ্কা মহিলাটির অনুকূলে রায় দিলেন (বুখারী হা/৩৪২৭ ‘নবীদের কাহিনী’ অধ্যায়, অনুচ্ছেদ-৪০, মুসলিম হা/১৭২০, মিশকাত হা/৫৭১৯)

শিক্ষা :

১. সন্তানের প্রতি মায়ের ভালবাসা অপরিসীম।

২. সুলায়মান (আঃ)-এর বিচক্ষণতা।

৩. প্রজ্ঞা ও দূরদর্শিতা ন্যায়বিচারের পূর্বশর্ত।

আরও দেখুন:  আবু বকর (রাঃ)-এর মর্যাদা

এ সম্পর্কিত আরও পোস্ট

মন্তব্য করুন

Back to top button